ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি এবং যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাসাচুসেটস লোয়েল বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষরিত

ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি এবং যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাসাচুসেটস লোয়েল বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষরিত পারস্পরিক গবেষণা সহযোগিতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ডাটা সায়েন্স ল্যাব এবং যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাসাচুসেটস লোয়েল বিশ্ববিদ্যালয়ের কিউবিক্স ল্যাবের মধ্যে একটি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়েছে। গত ৮ মে ভার্চুয়াল প্ল্যাাটফর্মে এ সমঝোতা স্বাক্ষর অনুষ্ঠিত হয়। চুক্তিপত্রে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির সহযোগী অধ্যাপক ও অতিরিক্ত রেজিস্ট্রার ড. নাদির বিন আলী এবং ম্যাসাচুসেটস লোয়েল ইউনিভার্সিটির সহকারী অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ আরিফ উল আলম নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে স্বাক্ষর করেন। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন ড্যাফোডিল ফ্যামেলির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ নূরুজ্জামান, সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রধান ড.
ইমরান মাহমুদ, সহকারী পরিচালক মোহাম্মদ আখতার উল আলম, সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আফসানা বেগম, জ্যেষ্ঠ প্রভাষক মোহাম্মদ সোহেল আরমান এবং ম্যাসাচুসেটস লোয়েল ইউনিভার্সিটির পিএইচডি শিক্ষার্থী ও গবেষণা সহকারী আতিকা মুনওয়ারা মাহি। চুক্তিপত্র অনুযায়ী ম্যাসাচুসেটস লোয়েল বিশ্ববিদ্যালয়ের কিউবিক্স ল্যাব এবং ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ডাটা সায়েন্স ল্যাব যৌথভাবে গবেষণা সহযোগিতা এবং প্রকল্পের কাজে সহযোগিতা নিশ্চিত করার জন্য একটি ‘জয়েন্ট ডেটা সায়েন্স ল্যাব’ প্রতিষ্ঠা করবে। এ চুক্তির আওতায় কিউবিক্স ল্যাব ড্যাফোডিল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদেরকে ডাটা সায়েন্সের নতুন নতুন গবেষণা সম্পর্কে শিক্ষাদানের জন্য টেকনিক্যাল রিসোর্স প্রদান করবে। অপরিদিকে ড্যাফোডিল বিশ্ববিদ্যালয়ের ডাটা সায়েন্স ল্যাব ডাটা প্রোভাইডার হিসেবে
কাজ করবে এবং ডাটা সায়েন্স মেজর হিসেবে গ্রহণকারী শিক্ষার্থীদের বিশ্বমানের ডাটা সায়েন্স রিসার্চ ও যৌথ প্রকাশনার সাথে যুক্ত করবে। শুধুমাত্র দক্ষতা অর্জনই নয়, এ সহযোগিতার মাধ্যমে দৈনন্দিন শিল্প কারখানা ও সমাজে ডাটা সায়েন্সভিত্তিক সমাধান প্রদানের ক্ষেত্রে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ অগ্রণী ভূমিকা পালন করছে।

–সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here